গুণিতক কাকে বলে? উদাহরন সহ | What is the multiplier? with examples

Author:

Published:

Updated:

গুণিতক কাকে বলে উদাহরন সহ What is the multiplier with examples

Get Study Online – Google News

Do you want to get our regular post instant? So you can follow our Google News update from here.

গুণিতক কাকে বলে? উদাহরন সহ | What is the multiplier? with examples

গুণিতক কাকে বলে? উদাহরন সহ | What is the multiplier? with examples

গুণিতক কাকে বলে

গণিতে, একটি গুনিতক বা গুণিতক হল যেকোনো পূর্ণসংখ্যা সাথে অন্য একটি পূর্ণসংখ্যার গুণফল। যদি a একটি পূর্ণসংখ্যা হয় এবং b একটি ধনাত্মক পূর্ণসংখ্যা হয়, তবে b এবং a এর গুণফল হল b কে a দ্বারা গুণ করে প্রাপ্ত সংখ্যা অর্থাৎ ab । সহজেই আমরা ৩ এর সাথে ৪ এর গুনফল হবে ১২ । আজকের আলোচনার বিষয় হল গুনিতক কি এবং এর উদাহরণ।

গুনিতক কাকে বলে? গুণিতক কাকে বলে ?
একটি সংখ্যাকে কোন পূর্নসংখ্যা দ্বারা গুন করলে যেসকল সংখ্যা পাওয়া যায়, সে সংখ্যাগুলোকে ঐ সংখ্যার গুনিতক বলে।

গুণিতক এর উদাহরণ যেমন- ৭ কে ৫ দ্বারা গুন করলে ফলাফল- ৩৫ হয়। এখানে ৩৫ সংখ্যাটি ৭ এর গুনিতক।

সাধারণত আমরা গনিতে আমরা যে নামতা ব্যবহার করি তা হ’ল একটি নির্দিষ্ট সংখ্যার গুনিতক। যেমন

৭×১ = ৭
৭×২ = ১৪
৭×৩ = ২১
৭×৪ = ২৮
৭×৫ = ৩৫

এখানে- ৭,১৪,২১,২৮,৩৫ সংখ্যাগুলো ৭ এর গুনিতক।

৫ × ১ = ৫
৫ × ২ = ১০
৫ × ৩ = ১৫
৫ × ৪ = ২০
৫ × ৫ = ২৫

এখানে- ৫,১০,১৫,২০,২৫ সংখ্যাগুলো ৫ এর গুনিতক।

৬ × ১ = ৬
৬ × ২ = ১২
৬ × ৩ = ১৮
৬ × ৪ = ২৪
৬ × ৫ = ৩০

এখানে- ৬,১২,১৮,২৪,৩০ সংখ্যাগুলো ৬ এর গুনিতক বা গুণিতক।

৮ × ১ = ৮
৮ × ২ = ১৬
৮ × ৩ = ২৪
৮ × ৪ = ৩২
৮ × ৫ = ৪০

এখানে- ৮,১৬,২৪,৩২,৪০ সংখ্যাগুলো ৮ এর গুনিতক।

গুনিতকের বৈশিষ্ট্য

  • গণিতে পূর্নসংখ্যার গুনিতক এর পাশাপাশি দশমিক সংখ্যারও গুনিতক হয়,এছাড়াও শূন্য (০) সংখ্যাটি সকল সংখ্যার গুনিতক।
  • প্রত্যেক সংখ্যা নিজেই নিজের গুনিতক। যেমন- ৫ সংখ্যাটি ৫ এর, ৮ সংখ্যাটি ৮ এর গুনিতক, ৬ সংখ্যাটি ৬ এর গুনিতক ।
  • গুনিতক সকল সংখ্যারই অসীম হয়। কারন সংখ্যার কোন শেষ সীমা নেই।
  • জোড় সংখ্যার গুনিতক জোড় সংখ্যাই হয় , তবে বিজোড় সংখ্যার গুনিতক জোড় বা বিজোড় উভয়ই হয় ।
  • যেকোন সংখ্যার গুনিতক দিয়ে তার গুননীয়ক কে ভাগ করলে একটি মূলদ সংখ্যা পাওয়া যায়।


সাধারন গুনিতক কাকে বলে?

The life of a farmer paragraph for class 10

যদি দুটি সংখ্যার গুনিতকে একই বা সাধারণ সংখ্যা দেখা যায় তবে এগুলিকে সাধারণ গুনিতক বলা হয়। যেমন

সাধারণ গুনিতক হলো ২টি সংখ্যার মধ্যে সাধারণ বা একই গুনিতক বিদ্যামান থাকা ।

৩ এর গুনিতক – ৩,৬,৯,১২,১৫
৬ এর গুনিতক – ৬,১২,১৮,২৪
এখানে, ৩ ও ৬ এর গুনিতকে ৬ এবং ১২ উভয় সংখ্যার গুনিতকেই রয়েছে। তাই ৬ ও ১২ দুইটি সংখ্যার সাধারন গুনিতক।

লঘিষ্ঠ সাধারন গুনিতক কাকে বলে? বা ল.সা.গু কাকে বলে ?

লঘিষ্ঠ মানেই কম সংক্ষক বা ছোট , সহজেই বলা যায় ২টি সংখ্যার গুনিতকের মধ্যে সবচেয়ে ছোট সংখ্যাটিকেই লঘিষ্ঠ সাধারণ গুনিতক বলে । সংক্ষেপে এটাকে ল.সা.গু বলা হয় । উপরোক্ত ৩ ও ৬ সংখ্যা দুটির সাধারন গুনিতকের মধ্যে ৬ সংখ্যাটি লঘিষ্ঠ সাধারন গুনিতক।

গনিতে গুনিতকের প্রয়োগ

৪ ও ৬ এর সাধারন গুনিতক ও ল.সা.গু.নির্নয় কর।

৪ এর গুনিতক- ৪,৮,১২,১৬,২০,২৪,২৮,৩২,৩৬

সাধারণ গুণিতক

দুই বা ততোধিক সংখ্যার গুণিতকগুলোর মধ্যে যে গুণিতকগুলো মিল পাওয়া যায় তাদের সাধারণ গুণিতক বলে।

৬= ৬, ১২, ১৮, ২৪, ৩০, ৩৬, ৪২, ৪৮, ৫৪, ৬০, ৬৬, ৭২…..
৮= ৮, ১৬, ২৪, ৩২, ৪০, ৪৮, ৫৬, ৬৪, ৭২, ৮০………
এখানে ৬ এবং ৮ এর মধ্যে ২৪, ৪৮, ৭২ এর মিল পাওয়া যায়। তাই এগুলোকে সাধারণ গুণিতক বলে।

Freedom Fighters Paragraph

লঘিষ্ঠ সাধারণ গুণিতক
সহজ ভাষায় সবচেয়ে ছোট গুনিতককেই ল.সা.গু বলে, এছাড়াও সাধারণ গুণিতক গুলোর মধ্যে সবচেয়ে ছোট গুণিতক কে লঘিষ্ঠ সাধারণ গুণিতক বা লসাগু বলে।
উপরের ৬ এবং ৮ এর লসাগু হবে ২৪।

গুণনীয়ক কাকে বলে
কোন এক বা একাধিক সংখ্যা যে সকল সংখ্যা দ্বারা নিঃশেষে বিভাজ্য হয় ঐ সকল সংখ্যাকে সেই সংখ্যার গুণনীয়ক বলে। মোট কথা গুণনীয়ক মানে ভাগ করা বা ভাগফল।
যেমনঃ ১২ এর গুণনীয়ক হলোঃ ১,২,৩,৪,৬,১২। এই ছয়টি সংখ্যা দিয়ে ১২ কে নিঃশেষে ভাগ করা যায় তাই এরা ১২ এর গুণনীয়ক।

সাধারণ গুণনীয়ক :
দুই বা ততোধিক সংখ্যার গুণনীয়ক গুলোর মধ্যে যে সংখ্যা গুলো সাধারণ বা কমন বা মিল সেগুলোকে সাধারণ গুণনীয়ক বলে।
৩০= ১,২,৩,৫,৬,১০,১৫,৩০।
৩৬= ১,২,৩,৪,৬,৯,১২, ১৮,৩৬।
৩০ ও ৩৬ এর সাধারণ গুণনীয়ক= ১,২,৩,৬

গরিষ্ঠ সাধারণ গুণনীয়ক বা গসাগুঃ
গুণনীয়ক নির্ণয়ের পরে বড় সংখ্যাকে গরিষ্ঠ সাধারণ গুণনীয়ক বা গসাগু বলা হয় । সাধারণ গুণনীয়ক গুলোর মধ্যে সবচেয়ে বড় সংখ্যাটিকে গরিষ্ঠ সাধারণ গুণনীয়ক বা গসাগু বলে।

উপরের ৩০ ও ৩৬ এর গসাগু হবে – ৬

৬ এর গুনিতক- ৬,১২,১৮,২৪,৩০,৩৬
এখানে, ৪ ও ৬ এর সাধারন গুনিতক – ১২,২৪,৩৬ এবং নির্নেয় ল.সা.গু – ১২ কারন, সাধারন গুনিতকগুলোর মধ্যে ১২ সবচেয়ে সংখ্যালঘু বা ছোট।

My Mother Paragraph for Class 5



Related Posts

About the author

Leave a Reply

Back to top arrow
কনফিউজিং সাধারণ জ্ঞান | General Knowledge for BCS, Admission & Jobs Exam Daily Spoken English #1 | English Spoken Tips চল্লিশ হাজার হাদীস থেকে চারটি কথা | Islamic Post A Railway Station Paragraph For SSC & HSC | Paragraph মৃত্যুর পরেও নেকি পাওয়ার ৬ টি উপায় | Islamic Post
কনফিউজিং সাধারণ জ্ঞান | General Knowledge for BCS, Admission & Jobs Exam Daily Spoken English #1 | English Spoken Tips চল্লিশ হাজার হাদীস থেকে চারটি কথা | Islamic Post A Railway Station Paragraph For SSC & HSC | Paragraph মৃত্যুর পরেও নেকি পাওয়ার ৬ টি উপায় | Islamic Post
কনফিউজিং সাধারণ জ্ঞান | General Knowledge for BCS, Admission & Jobs Exam Daily Spoken English #1 | English Spoken Tips চল্লিশ হাজার হাদীস থেকে চারটি কথা | Islamic Post A Railway Station Paragraph For SSC & HSC | Paragraph মৃত্যুর পরেও নেকি পাওয়ার ৬ টি উপায় | Islamic Post
Enable Notifications OK No thanks